প্রকাশিত সংবাদের প্রতিবাদ ও ব্যাখ্যা

গত ১৭মে ২০২০ইং তারিখে রোজ রবিবার ‘প্রতিদিন বাংলাদেশ’ ২৪.কম অনলাইন পত্রিকায় ‘চুনারুঘাটে প্রতিপক্ষের হামলায় ২জন মহিলা আহত’ শিরোনামে প্রকাশিত সংবাদটি আমার দৃষ্টিগোছর হয়েছে। সংবাদের আমাকে জড়িয়ে যে তথ্য প্রকাশ করা হয়েছে তা সুম্পূর্ণ মিথ্যা, বানোহাট ও মানহানীকর বটে।

প্রকৃত ঘটনা হল-চুনারুঘাট উপজেলার ৯নং রানীগাঁও ইউনিয়নের ইসলামপুর গ্রামের আলী হোসেনের মেয়ে মোছাঃ রিনা বেগমের সাথে আমার মা মোছাঃ রহিমা বেগমের তুচ্ছ বিষয় নিয়ে কথা কাটাকাটি হয়। এরই জের ধরে আমার মায়ের উপর হামলাও করে কয়েকজন দুর্বৃত্ত। বিষয়টি পরে আমি তাকে জিজ্ঞাসাবাদ করলে সে আমার উপর রাগান্বিত হয়ে আমাকে লাঠি দ্বারা আঘাত করে এবং কোদাল দ্বারা আমাকে আঘাত করে।

পরে রিনা বেগম ও তার মা ও তার ছোট বোন মোছাঃ রুবিনা বেগমও সহ একদল দুর্বত্ত আমার মাকে মারধর করে। আমার মায়ের চিৎকার শুনে ঘর থেকে বাহির হলে তার দুই ভাই মোঃ সুজন মিয়া (২৫) এবং রাজন মিয়া (১৮) আমাকে দেশী অস্ত্র এবং লাঠি দ্বারা আঘাত করার চেষ্টা করে। পরে এলাকার লোকজন এগিয়ে আসলে তারা চলে যায়।

এদিকে হামলা করে উল্টো পরে প্রতিপক্ষের লোকজন চুনারুঘাট হাসপাতালে এসে ভর্তি হয় এবং আমার বিরোদ্ধে অনলাইন পত্রিকায় একটি বানোয়াট সংবাদ প্রকাশ করায়। এ বিষয়কে কেন্দ্র করে চুনারুঘাট থানায় অভিযোগও দায়ের করেন।

পরের দিন বিষয়টি আমি ফেইসবুক এবং অনলাইন পত্রিকার মাধ্যমে জানতে পারি। ফেইসবুকের একাধিক আইডি থেকে যার নাম, জধলড়হ অযসবফ, ঝঁলড়হ ঝঁলড়হ, স্বপ্নের পৃথিবী ও ঝধষসধহ অযসবফ গধসঁহ নামে এই সকল আইডি থেকে আমার বিরুদ্ধে খারাপ ভাষায় লেখালেখি করে।

সংবাদের এক অংশে বলা হয় বিষয়টি আমি ৯নং রাণীগাঁও ইউপি চেয়ারম্যানকে অবহিত করেন । কিন্তি তিনি এ বিষয়ে তিনি কিছুই জানেন না বলে আমাদের জানান। আমি একজন সুষ্ঠু ও সচেতন নাগরিক হিসেবে আমি এর তীব্র নিন্দা ও প্রতিবাদ জানাই। অথচ একটি কু-চক্রী মহল তুচ্ছ বিষয় নিয়ে এ ধরনের ষরন্তমূলক সংবাদ প্রকাশ করিয়েছে।

সাংবাদিক ভাইদের প্রতি আমার অনুরোধ সঠিক তথ্য যাচাই বাচাই করে সংবাদ পরিবেশন করলে আমরা উপকৃত হবো। আমি উক্ত প্রকাশিত সংবাদের তীব্র নিন্দা ও প্রতিবাদ জানাই।

-প্রতিবাদকারী
মোঃ মাহমুদ মিয়া
পিতা- মোঃ সুরুজ আলী
গ্রাম- ইসলামপুর, ডাকঘর- রানীগাঁও
চুনারুঘাট, হবিগঞ্জ।
মোবাইলঃ ০১৭৩৮-৬৫৮৪৭৭

     এই ক্যাটাগরীর আরো খবর

ge-418" />